শিরোনাম: বাজার এলাকায় শৃঙ্খলা নিশ্চিতে ব্যবসায়ীদের ঐক্যের কোন বিকল্প নেইঃ বীর বাহাদুর উশৈসিং উপেন্দ্র লাল দাশ এবং মাতা শৈলবালা দাশ এর প্রয়াণ দিবসে শুরু হলো তিনদিনব্যাপী ভজন কীর্ত্তন,ধর্মসম্মিলন ও মহানামযজ্ঞ বান্দরবান সেনা জোনের শিক্ষা সহায়ক সামগ্রী উপহার পেয়ে খুশি দূর্গম ক্যাপলং পাড়া’র শিক্ষার্থীরা রোয়াংছড়িতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্মার্ট উপহার “হার পাওয়ার” প্রকল্পের ল্যাপটপ বিতরণ স্মার্ট বান্দরবান-স্মার্ট ক্রীড়াঙ্গনঃ বান্দরবান বিশ্ববিদ্যালয় আন্তঃ বিভাগ ক্রিকেট টুর্নামেন্ট এর ট্রফি হস্তান্তর ও জিডিএস বিভাগের জার্সি উন্মোচন বান্দরবানে ধর্ষনের দায়ে ১ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড রুমা উপজেলায় মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত ১ ৪০ হারানো মোবাইল ফোন উদ্ধার করলো ২ আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন

রহস্যজনক মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নারীর মৃত্যুঃ সেই কথিত ডাক্তার ওয়াসিম কে গ্রেফতারে পুলিশী অভিযান


ডেস্ক রিপোর্ট প্রকাশের সময় :৩ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ১২:৪৬ : পূর্বাহ্ণ 825 Views

বান্দরবান সদরের ৪নং সুয়ালক ইউনিয়নের কাইচতলি ২ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা ছেনুয়ারা (৩৫) এর রহস্যজনক মৃত্যুর পর থেকে পলাতক তাঁর স্বামী কথিত ডাক্তার ওয়াসিম কে গ্রেফতারে সুয়ালক ইউনিয়নে তল্লাশি অভিযান চালিয়েছে বান্দরবান সদর থানা পুলিশ।বৃহস্পতিবার মধ্য রাতে গোপন সংবাদ এর ভিত্তিতে এই অভিযান চালিয়েছে সদর থানা পুলিশ।স্পর্শকাতর এই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা অভিযান এর বিষয়টি সিএইচটি টাইমস ডটকম কে নিশ্চিত করেছেন।তবে তাকে সেখানে পাওয়া যায়নি।তিনি আরও জানান,সম্ভাব্য যেসব এলাকায় গোপন সংবাদ এর ভিত্তিতে আসামির অবস্থান এর বিষয়ে তথ্য পাচ্ছি সেসব এলাকায় অভিযানে যাচ্ছে পুলিশ।তাকে গ্রেফতারে পুলিশ এর এই অভিযান অব্যাহত আছে বলেও উল্লেখ করেন আলোচিত এই মামলার সদ্য দায়িত্ব পাওয়া তদন্ত কর্মকর্তা।

এদিকে ছেনুয়ারার রহস্যজনক মৃত্যুর পর থেকেই পালিয়ে বেড়ানো ওয়াসিম প্রায় সময়ই সুয়ালক এর কাইচতলিতে তাঁর কথিত দ্বিতীয় স্ত্রী এর সাথে দেখা করতে রাতের অন্ধকারে এলাকায় প্রবেশ করার খবর এখন ওপেন সিক্রেট একটি বিষয়ে পরিণত হয়েছে।এরই সুত্র ধরে মূলত পুলিশ এই অভিযান চালিয়েছে।

সিএইচটি টাইমস ডটকম এর নিজস্ব তথ্যানুসন্ধানে জানা যায়,সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদের ২নং ওয়ার্ড এর ইউপি সদস্য যিনি নিজেও সাম্প্রতিককালে রোহিঙ্গা নাগরিকদের এনআইডি কার্ড করে দেয়ার মতো ঘটনায় আলোচিত সেই ইউপি সদস্য এর সহায়তা নিয়ে নানাভাবে নিজেকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাত থেকে বাঁচতে চেষ্টা তদ্বির করে আসছিলো পলাতক ওয়াসিম।আইনের হাত থেকে বাঁচতে ইতিমধ্যে কথিত এই ডাক্তার ওয়াসিম সুয়ালক এর স্থানীয় পর্যায়ের আরও কয়েক জন নেতার সহযোগিতা নিয়ে উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিতেও চেষ্টা করে যাচ্ছে বলে জানা যায়।

২নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্যের আরেক সহযোগী কিশোরী পাচার এর অভিযোগে কারাগারে থাকা মুন্না মাত্র কয় দিন আগেই সদর থানার পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার হয় এবং বর্তমানে কারাগারে রয়েছে।

মুন্নার জামিন এবং রিমান্ড বাতিল করার জন্য সেই ইউপি সদস্য এবং সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদ এর বর্তমান চেয়ারম্যান নানা মহলে তদ্বির করার বিষয়টি সুয়ালক ইউনিয়নে সমালোচনার ঝড় তুলে।সেই ইউপি সদস্য,পলাতক ওয়াসিম এবং কিশোরী পাচার এর অভিযোগে কারাগারে থাকা মুন্না তিনজনই সুয়ালকে একটি সংঘবদ্ধ সিন্ডিকেট এর অন্যতম হোতা।

মুন্নাকে জামিনে আনার তদ্বিরবাজীর রেশ কাটতে না কাটতেই সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদে আরও একটি ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্ম দেয় সেখানকার চেয়ারম্যান ও টাকার বিনিময়ে এনআইডি কার্ড বানিয়ে দেয়ার অভিযোগে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য।

বান্দরবান সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসার এর উপস্থিতি তে তদন্ত চলাকালীন সময়ে মানবাধিকার নিয়ে কাজ করা রিপন চক্রবর্তীর উপর হামলা করে চেয়ারম্যান ও বিতর্কিত ২নং ইউপি সদস্যের অনুগত ক্যাডাররা।সিএইচটি টাইমস ডটকমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মানবাধিকার রক্ষায় কাজ করা রিপন চক্রবর্তী।চাঁদাবাজির অভিযোগে কয়েক বছর আগে সদর উপজেলা যুবলীগ এর সাধারণ সম্পাদক এর পদ থেকে বহিষ্কৃত এক নেতাও এই হামলার সাথে সরাসরি জড়িত ছিলো বলে জানা যায়।এই ঘটনায় আরও একটি মামলা হয় এবং পরে আদালতে হাজির হয়ে অভিযুক্তরা জামিন আসে।এসব জনপ্রতিনিধি সমগ্র সুয়ালকে একটি সংঘবদ্ধ সিন্ডিকেট এর রাজত্ব কায়েম করেছে এমনটাই জানিয়েছে সেখানকার এলাকাবাসী।অনেকে তাদের ভয়ে মুখ খুলতে পারছে না।কেউ মুখ খুললেই নাকি সেসব জনপ্রতিনিধিরা নানা ধরনের হুমকি ধামকি এবং ভয় ভীতি প্রদর্শন করে।এমনকি ফাঁসিয়ে দেয়ারও হুমকি প্রদর্শন করে।

যদিও ওয়াসিম উচ্চ আদালত থেকে এখনও পর্যন্ত জামিন নিতে পারেনি।জামিনসহ আইনি বিষয়গুলো মোকাবেলা করতে কাইচতলিতে সে জায়গা জমি বিক্রি করেছে এবং যেকোনও মূল্যে জামিন নিতে চেষ্টা করছে বলে নিশ্চিত করেছে রহস্যজনক মোটর সাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত ছেনুয়ারার বাবা ও মামলার বাদী মো.আবুল হোসেন এবং ছেনোয়ারার স্বজনরা।

পুলিশ এর এমন অভিযানে আশার আলো খুজেঁ পেয়েছে মৃত ছেনোয়ারার আত্মীয় স্বজন।এই অভিযান কে সাধুবাদ জানিয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি তাদের একটাই আবেদন ছেনোয়ারা মৃত্যু রহস্য উন্মোচন করুক আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।এবিষয়ে ছেনোয়ারার খালা কাজী নিরুতাজ বেগম বলেন,ওয়াসিম যদি কোনও অপরাধই না করে তাহলে পালিয়ে বেড়ানোর কারণ কি।

কি ঘটেছিলো সেদিনঃ জানতে হলে আরও পড়ুন সিএইচটি টাইমস ডটকম এর ১৩ই মার্চ প্রকাশিত প্রতিবেদনেঃ-👇👇👇

https://www.chttimes.com/বান্দরবান/মোটরসাইকেল-দুর্ঘটনা-নাকি/

ট্যাগ :

আরো সংবাদ

ফেইসবুকে আমরা



আর্কাইভ
March 2024
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
26272829  
আলোচিত খবর

error: কি ব্যাপার মামা !!